আজ ২৮শে জুন ২০১৭, ১৪ই আষাঢ় ১৪২৪, ৫ই শাওয়াল ১৪৩৮

এস আর এফ খানের একক আলোকচিত্র প্রদর্শনী – প্রতিটি ফটোগ্রাফ কবিতা দিয়ে নতুন এক গল্প বলে

জুলাই ২৯, ২০১৬

ঢাকার দৃক গ্যালারীতে গতকাল এস আর এফ খান শুভ্রর আলোকচিত্র প্রদর্শনী শুরু হয়েছে। ধানমন্ডি ২৭ নম্বরে অবস্থিত বিবিয়ানা বুটিক শপের দক্ষিণ পাশে দৃক গ্যালারী অবস্থিত।

ঠিকানা: হাউস # ৫৮, রোড # ১৫/এ (নতুন), ধানমন্ডি, ঢাকা – ১২০৯।
ফোন নম্বর: ৯১২০১২৫, ৮১১২৯৫৪, ৮১২৩৪১২, ০১৭১৮-১৯১৫২৪
দিক নির্দেশনা 

প্রদর্শনীটি আজ শেষ হয়ে যাবে। হাজার মাইল দূরে বসে ভার্চ্যুয়ালী প্রদর্শনীটি দেখার সুযোগ হয়েছিল আমার। এস আর এফ খান শুভ্র একজন কবি, ফটোগ্রাফার, সংগীত শিল্পী, সংগীত লেখক, সুরকার, উপন্যাসিক, ব্যবসায়ী এবং সমাজসেবক। শুভ্রর ক্যামেরার লেন্সে চোখ রেখে মধ্য রাত্রিতে আমি আকাশ দেখলাম। আকাশের এক পাশে মেঘেদের আড়ালে সেদিন সূর্য লুকিয়ে ছিল আর সূর্যের কমলা কিরণ মেঘেদের বুকে আঁকিবুঁকি কেটে ভেসে ভেসে ছিল আর সেইসব কিছুকে ছবিতে ধরে এনে শুভ্র ঝুলিয়ে দিয়েছে দৃক গ্যালারীর দেওয়ালে।

কত যুগ কেটে গেছে সবুজ ভোরে হলুদ রোদে প্রজাপতির নাচন দেখিনি। সেই প্রজাপতিকে দেখলাম শুভ্রর ক্যামেরার লেন্সে চোখ রেখে।

আলোছায়াতে শুভ্রর  লেন্সে চোখ রেখে  দেখলাম রবীন্দ্রনাথের অভিসার।
নগরীর নটী চলে অভিসারে যৌবনমদে মত্তা।
অঙ্গে আঁচল সুনীলবরণ,
রুনুঝুনু রবে বাজে আভরণ–
সন্ন্যাসী-গায়ে পড়িতে চরণ থামিল বাসবদত্তা।

13882395_230398244020825_427359671544888550_n

প্রতিটি ফটোগ্রাফ ফ্রেমের ভেতর এক একটি গল্প ধরে রেখেছে। প্রতিটি ফটোগ্রাফ অসাধারণ। প্রতিটি ফটোগ্রাফ কথা বলে। প্রতিটি ফটোগ্রাফ মনোহরণ। সেজন্য সুদূর কানাডাতে বসে আমি এই প্রদর্শনী থেকে দুইটি আলোকচিত্র কিনে ফেললাম। কারুকে উপহার হিসাবে দেবার জন্য ফটোগ্রাফগুলো কেনা যেতে পারে। ফটোগ্রাফগুলো যেকোন ঘরে বা সিঁড়ির পাশের দেওয়ালে, বা অফিস সাজাতে কেনা যেতে পারে। ফটোগ্রাফগুলো যেখানেই রাখা হবে সেইখানেই এক একটি গল্প থেমে থাকবে। আমার চোখে তো সকলই শোভন, সকলই নবীন, সকলই বিমল, সুনীল আকাশ, শ্যামল কানন, বিশদ জোছনা, কুসুম কোমল— সকলই আমার মতো ।

আজই প্রদর্শনীতে আসুন। আপনার পছন্দের ছবিটি কিনে নিন। শুভ্রর সব শিল্পই অনন্য । এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীটি তার ব্যতিক্রম নয়। প্রতিটি ফটোগ্রাফের সাথে রয়েছে শুভ্রর লেখা কবিতা। শুভ্রর প্রতিটি কবিতাই অসাধারণ। কবিতার প্রতিটি লাইন বুকের ভেতর খামচে ধরে। তারপর টেনে নিয়ে যায় অন্য এক গ্রহে। খুব পরিচিত অথচ বহুযুগের অচেনা এক জগতে টেনে হেঁচড়ে নিয়ে যায় ক্ষণিকের তরে। তারপর ছেড়ে দেয় বিস্মিয় আর কৌতুহলী চোখে থমকে যেয়ে কবিতায় ডূবে যেতে ।  শুভ্রর আলোকচিত্র প্রদর্শনী দেখে জীবনানন্দ দাসের “বোধ” মনে পড়ে গেলো

মাথার ভেতরে স্বপ্ন নয়
প্রেম নয়
কোন এক বোধ কাজ করে
আমি সব দেবতারে ছেড়ে
আমার প্রানের কাছে চলে আসি
বলি আমি এই হৃদয়েরে
সে কেনো জলের মত ঘুরে ঘুরে কথা কয়?
অবসাদ নাই তার?
নাই তার শান্তির সময়?
কোনোদিন ঘুমাবেনা?
ধীরে শুয়ে থাকিবার স্বাদ পাবে নাকি?
পাবেনা আহ্লাদ

এস আর এফ খান শুভ্রর একক আলোকচিত্র প্রদর্শনীর জন্য রইল শুভ কামনা।

আয়শা মেহের

২৯শে জুলাই, ২০১৬
সম্পাদিকা – প্রবাসনিউজ২৪, টরেন্টো, কানাডা।

 

13567496_10207997365586805_3716758403504383750_n

এস আর এফ খান শুভ্রর অন্যান্য বইঃ
গল্পের মতো,
আঙুলের ঘর,
শঙ্খচিলের ডানা ,
শব্দ বোনা ঘর (কলকাতা),
অন্যরকম কিছুরা ,
হ্যাঁ অথবা না,
তোমাকে,
ভেতর বাহির ,
টুকরো গল্পরা (কলকাতা), ও
একটু আধটু 

সংবাদটি পড়া হয়েছে ৫২৯ বার

( বি: দ্র: প্রবাস নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম -এ প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও, কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। কপিরাইট © সকল সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত প্রবাস নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম )

আপনার ফেসবুক একাউন্ট ব্যবহার করে মতামত প্রদান করতে পারেনঃ

x
সর্বশেষ